খুব বেশি দিন আগের কথা নয়, উড়িষ্যার নুয়াপাড়া জেলার উপর দিয়ে ছত্তিসগড়ের গরিয়াবন্দ জেলায় যাওয়ার পথে, ব্লক হেড-কোয়ার্টার দেওভোগের এই ঘটনা। সেখানেই দেখি, অনন্য দর্শন একদল যুবক আর কিশোর সাইকেল চেপে আসছে।

ঝলমলে, রাজকীয় পোশাক তাদের গায়ে। পরনে ফুলের গয়না, চকচকে ওয়েস্ট কোট, ঘুঙুর-বাঁধা পায়ের মল আর মাথায় রকমারি শিরবস্ত্র। তাদের মধ্যে আবার একজনের মাথায় বিয়ে করতে চলা বরের পাগড়ি বাঁধা। আমি মনে মনে ভাবি: ওরা নির্ঘাৎ কোনও যাত্রাদলের লোকজন।

আমি থেমে গেলাম, আর ওরাও দাঁড়িয়ে পড়ল। আমি ওদের ছবি তুলতে আরম্ভ করে দিয়েছি। যখন তাদের জিজ্ঞেস করলাম যে তারা কোথায় যাচ্ছে, ২৫ বছর বয়সী সোম্বারু যাদব বলল, “আমরা ঠাকুরের সামনে নাচ করতে যাচ্ছি দেওভোগে।”

গুলশন যাদব, কীর্তন যাদব, সোম্বারু, দেবেন্দ্র, ধনরাজ আর গোবিন্দ্রা আসছে নুয়াগুড়া গ্রাম থেকে। যেখানে আমাদের সাক্ষাৎ হয়, সেই দেওভোগ ব্লকের কোসামকানি গ্রাম পঞ্চায়েত এলাকা থেকে কম করে হলেও ৭-৮ কিলোমিটার দূরে ওদের গ্রাম। ওদের মধ্যে কেউ চাষি, কেউ কৃষিমজুর আর কেউ বা আবার স্কুল পড়ুয়া।

PHOTO • Purusottam Thakur

বাংলা অনুবাদ: শৌভিক পান্তি

উত্তর ২৪ পরগনার মফস্বল শহর ধান্যকুড়িয়ার মানুষ শৌভিক পান্তির ঠিকানা এখন কলকাতা। বাংলা সাহিত্যে স্নাতকোত্তর শৌভিক ডিজিটাল হিউম্যানিটিজে প্রশিক্ষিত। কলকাতার বিখ্যাত কলেজ স্ট্রিটের বইপাড়ায় পুরোনো, ধূলিমলিন এবং অমূল্য বইয়ের সন্ধান তাঁর প্রিয়তম কাজ।

Purusottam Thakur

পুরুষোত্তম ঠাকুর ফটোগ্রাফার এবং তথ্যচিত্র নির্মাতা, তিনি ২০১৫ সালের পারি ফেলো। ফ্রিল্যান্স সাংবাদিক হিসেবে মূলত ছত্তিসগড় তথা উড়িষ্যা নিয়ে তিনি লেখেন। আজিম প্রেমজী ফাউন্ডেশনের জন্যও পুরুষোত্তম কাজ করেন।

Other stories by Purusottam Thakur